1. shahalom.socio@gmail.com : admin :
  2. nagorikit@gmail.com : ভোলাহাটচিত্র : ভোলাহাটচিত্র
  3. bholahatchitro@gmail.com : ভোলাহাটচিত্র : ভোলাহাটচিত্র
আজ রবিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ০৬:০৪ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখুন, বিনা প্রয়োজনে বাইরে বের হওয়া থেকে বিরত থাকুন।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলায় ভোলাহাটের ওসিসহ ৬ পুলিশ কর্মকর্তাকে পুরুস্কৃত করা হলো

  • আপডেট করা হয়েছে সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ১৭৩ বার পড়া হয়েছে

স্টাফ রিপোর্টার ঃভোলাহাট উপজেলায় সংঘটিত ডাকাতি মামলার মূল রহস্য উদঘাটন করে আসামি গ্রেফতার ও লুণ্ঠিত মালামাল উদ্ধারের স্বীকৃতিস্বরূপ ভোলাহাটের ওসিসহ ৬ পুলিশ কর্মকর্তাকে পুরস্কৃত করেছেন রেঞ্জ ডিআইজি। রোববার দুপুরে রাজশাহী রেঞ্জ ডিআইজির কার্যালয়ের কনফারেন্স রুমে রাজশাহী রেঞ্জের ডেপুটি ইন্সপেক্টর জেনারেল মো. আব্দুল বাতেন তাদের পুরস্কার হিসেবে নগদ অর্থ ও সনদ তুলে দেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, রাজশাহী রেঞ্জের অ্যাডিশনাল ডিআইজি (প্রশাসন ও অর্থ) জয়দেব কুমার ভদ্র, (অপারেশনস অ্যান্ড ক্রাইম) টিএম মোজাহিদুল ইসলাম, চাঁপাইনবাবগঞ্জের পুলিশ সুপার এএইচএম আবদুর রকিবসহ রাজশাহী রেঞ্জের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

পুরস্কারপ্রাপ্তরা হলেন- চাঁপাইনবাবগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) এসএএম ফজল-ই-খুদা পলাশ, ভোলাহাট থানার ওসি মো. মাহবুবুর রহমান, জেলা গোয়েন্দা পুলিশের এসআই মশিউর রহমান, আসগর আলী, অনুপ কুমার সরকার ও আরিফুল ইসলাম।

রাজশাহী রেঞ্জের অ্যাডিশনাল ডিআইজি (অপারেশনস অ্যান্ড ক্রাইম) টিএম মোজাহিদুল ইসলাম বলেন, সবার সম্মিলিত প্রচেষ্টায় দ্রুততম সময়ের মধ্যে অপরাধের রহস্য উদঘাটন ও অপরাধীদের গ্রেফতার করা হচ্ছে পুলিশের কাজ। চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভোলাহাটে ডাকাতি মামলার ক্ষেত্রে সেটিই প্রমাণিত হয়েছে। যারা উদঘাটন করেছেন তাদের ডেডিকেশন ছিল। তারা নিরলসভাবে কাজ করে স্বল্প সময়ের মধ্যে ডাকাতি মামলার রহস্য উন্মোচন করেছেন। তাদের অনুপ্রাণিত করতেই পুরস্কৃত করা হয়েছে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জের পুলিশ সুপার এএইচএম আব্দুর রকিব বলেন, ভোলাহাটে ডাকাতির ঘটনা ছিল খুবই আলোচিত। ডাকাতদের শনাক্ত করা ছিল পুলিশের জন্য চ্যালেঞ্জ। দ্রুত এ মামলার রহস্য উদঘাটন এবং প্রকৃত আসামিদের গ্রেফতার করায় তাদের অনুপ্রাণিত করতে পুরস্কার প্রদান করেছেন রেঞ্জ ডিআইজি। এ পুরস্কার তাদের ভালো কাজে অনুপ্রেরণা জাগাবে।

উল্লেখ্য, ২৩ আগস্ট চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভোলাহাট থেকে ঢাকাগামী তিনটি বাসে ডাকাতির ঘটনা ঘটে। ডাকাতরা লাঠি ও হাতুড়ি দিয়ে বাসের সামনের অংশ ভাঙচুর করে ভেতরে ঢুকে যাত্রীদের পিটিয়ে নগদ অর্থ ও স্বর্ণালংকার ছিনতাই করে। শেষের বাসটিতে ছিনতাই সম্পন্ন করার আগেই ঘটনাস্থলে পুলিশ উপস্থিত হলে পালিয়ে যায় ডাকাতরা।

এ ঘটনার পর থেকেই ডাকাত সদস্যদের আটক ও মালামাল উদ্ধার করতে অভিযান শুরু করে পুলিশ। ডাকাতির ঘটনায় জড়িত মূলহোতাসহ বেশ কয়েকজন ডাকাতকে গ্রেফতার করে পুলিশ। আটককৃতদের কাছ থেকে ছিনতাই হওয়া মোবাইল ফোন, স্বর্ণালংকার, নগদ টাকা উদ্ধার করেছে হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
ডিজাইনঃ নাগরিক আইটি (Nagorikit.com)